পাগলামি করার দরকার নেই, ঘরেই রুমাল তৈরি করুন : প্রধানমন্ত্রী

পাগলামি করার দরকার নেই, ঘরেই রুমাল তৈরি করুন : প্রধানমন্ত্রী

দেশে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত তিনজন শনাক্ত হওয়ার পর সারা দেশে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। এ অবস্থায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশবাসীকে বেশ কিছু পরামর্শ দিয়েছেন।

পরামর্শ দিয়ে দেশের জনগণের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ এবং যাতে ছড়িয়ে না পড়ে সেজন্য সরকারের পক্ষ থেকে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। তাই এ নিয়ে অহেতুক আতঙ্কিত হয়ে ঘরের মধ্যে মাস্ক পরে থাকার দরকার নেই। শুধু যাদের সর্দি-কাশি হয়েছে তারা একটু সাবধানে থাকবেন। করোনা আতঙ্কে মাস্ক ও হ্যান্ড স্যানিটাইজার কিনে কিনে জমা করে রাখার দরকার নেই। পাগলামি করার দরকার নেই। সর্দি-কাশিতে কাপড় বা টিস্যু ব্যবহার করতে হবে। কাপড় কেটে ঘরেই রুমাল তৈরি করুন। কেউ হ্যান্ড সেক (করমর্দন) করবেন না। পরিষ্কার ও পরিচ্ছন্ন থাকবেন, জনসমাগম এড়িয়ে চলবেন।

সোমবার (৯ মার্চ) গণভবনে আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির বৈঠকের শুরুতে সূচনা বক্তব্যে এসব পরামর্শ দেন প্রধানমন্ত্রী।

আতঙ্কিত না হওয়ার জন্য দেশবাসীকে আহ্বান জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, করোনা নিয়ে আতঙ্কিত হওয়ার কারণ নেই। করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের হার যে খুবই বেশি সেটা নয়। বিশ্ব জনসংখ্যার অনুপাতে হিসাব করলে দেখা যায় প্রতি লাখে এ ভাইরাসে দুজন সংক্রমিত হয়েছেন। তাই এ নিয়ে আতঙ্ক নয়, সচেতন ও সতর্ক থাকতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ইতালি ফেরত দুজন এবং তাদের এক স্বজন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। সঙ্গে সঙ্গে তাদের আলাদা করা হয়েছে, তাদের চিকিৎসা চলছে। করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসায় আলাদা একটি হাসপাতাল নির্দিষ্ট করে রাখা হয়েছে। নির্দিষ্ট হাসপাতাল তো রয়েছেই। এছাড়া প্রতিটি হাসপাতালে এই রোগে আক্রান্তদের চিকিৎসায় পৃথক বেড প্রস্তুত রাখা হয়েছে। বিমানবন্দরসহ দেশের সব প্রবেশ পথে আগতদের পরীক্ষা-নিরীক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

মুজিববর্ষের অনুষ্ঠান প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আন্তর্জাতিকভাবে করোনা ভাইরাস নিয়ে সমস্যা দেখা দিয়েছে। মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথিদের অনেকেই নিজ দেশে করোনা ভাইরাস সমস্যার কারণে আসতে পারছেন না। তাই মুজিববর্ষ উপলক্ষে আয়োজিত জনসমাগমের অনুষ্ঠান স্থগিত করা হয়েছে। পরিস্থিতি ঠিক হলে আমরা এটি আয়োজন করব।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *