দেশে তৈরি হচ্ছে জীবাণু মুক্তকরণ টানেল ‘নিরাপদ নাগরিক চেম্বার’

দেশে তৈরি হচ্ছে জীবাণু মুক্তকরণ টানেল ‘নিরাপদ নাগরিক চেম্বার’

দেশীয় প্রযুক্তিতে ৩৬০ ডিগ্রি ডিসইনফেক্ট্যান্ট স্প্রের মাধ্যমে জীবাণু মুক্তকরণ টানেল তৈরি করেছে ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশের (আইডিইবি) আইসিটি ও ইনোভেশন বিভাগ।

আইডিইবি’র আইওটি এন্ড রোবটিক্স ল্যাব’র মেন্টর প্রকৌশলী জুবায়ের আল বিল্লাল খান ও বিভাগের সদস্য প্রকৌশলী তানভির হোসেনের যৌথ প্রচেষ্টায় এবং অভিজ্ঞ মাইক্রোবায়োলজিস্টদের পরামর্শে তৈরিকৃত ডিসইনফেকশন টানেলটির নামকরণ করা হয়েছে ‘নিরাপদ নাগরিক চেম্বার’।

শরীরের উন্মুক্ত অংশ, পরিধেয় বস্ত্র, জুতা ইত্যাদির উপরিভাগে ঘন কুয়াশা তৈরি করে এর ভেতর দিয়ে প্রবেশকারী ব্যক্তির শরীরে ডিসইনফেকশন স্প্রের পাতলা আবরণ তৈরি হয়। ফলে স্বল্প সময়ে অধিকাংশ জীবানু নিষ্ক্রিয় করতে সম। স্প্রে অত্যন্ত সুক্ষ্ম হবার কারণে খরচ তুলনামূলক অনেক কম এবং ব্যবহারকারী ব্যক্তি অস্বস্তিকরভাবে ভিজে যাবেন না। টানেলে প্রবেশের পূর্বে ব্যবহারকারী ব্যক্তি প্রথমে তার হাত জীবানুমুক্ত করবেন এবং জীবানুনাশক ফুটবাথের উপর দিয়ে হেটে বের হয়ে আসবেন।

‘নিরাপদ নাগরিক চেম্বার’ মানব শরীর জীবাণুমুক্তকরণের পাশাপাশি হুইল চেয়ার, স্ট্রেচার অথবা যেকোন বানিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের মালামাল বহনকারী ছোট বাক্স ও যন্ত্রপাতি জীবানু মুক্ত করা যায়। এটি হেভিডিউটি হাইপ্রেসার পাম্প ব্যবহার করে তৈরি করার কারণে জনাকীর্ণ এবং অতিরিক্ত শারিরিক উপস্থিতি সম্পন্ন প্রতিষ্ঠানের জন্য বিষেশভাবে কার্যকরী। চেম্বারটি হেভিডিউটি ও পানি নিরোধী হওয়ায় যে কোনো প্রতিষ্ঠানের ভেতরে, বাইরে এবং যে কোনো আবহাওয়ায় ব্যবহার উপযোগী।

‘নিরাপদ নাগরিক চেম্বার’ গবেষণা কাজে সার্বিক সহায়তা ও উৎসাহ প্রদান করেছেন নবজাতক শিশু বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ডাঃ জাবরুল এস এম হক। আসগর আলী হাসপাতালে ডিসইনফেকশন টানেলটি প্রথম পরীামূলক প্রয়োগে সম্পূর্ণ সফলকাম হয়েছে বলে উদ্যোক্তারা দাবি করেছেন।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *