দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকবে ইউরোপীয় ইউনিয়ন

দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকবে ইউরোপীয় ইউনিয়ন

কোভিড-১৯ মহামারির এই দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকবে ইউরোপীয় ইউনিয়ন। ঢাকায় নিযুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত রেনসে তিরিঙ্ক এক ভিডিওবার্তায় এ তথ্য জানান। তিনি বাংলাদেশে তিনটি খাতে সহযোগিতার বিষয়ে জোর দেন।

শনিবার (৯ মে) ইউরোপীয় ডে উপলক্ষে এক ভিডিও বার্তা দেন তিনি।

ঢাকায় নিযুক্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত রেনেসে তিরিঙ্ক বলেন, আমি তিন বছর ধরে বাংলাদেশে দায়িত্ব পালন করছি। এটা আমার জন্য অত্যন্ত আনন্দের। আমরা বাংলাদেশ ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের মধ্যে সম্পর্ক শক্তিশালী করতে কাজ করছি।

বাংলাদেশের তৈরি পোশাক শিল্প দীর্ঘদিন ধরে ইউরোপের বাজারে শুল্কমুক্ত সুবিধা পেয়ে আসছে। তবে কোভিড-১৯ এর কারণে  বাংলাদেশের অর্থনীতি ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। কারখানা বন্ধ রয়েছে। উৎপাদন ব্যাহত হচ্ছে। হাসপাতালে সংখ্যাধিকেরও বেশি ভিড়। এই অবস্থায় আমরা বলতে চাই, এই মহামারির সময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকবে ইউরোপীয় ইউনিয়ন।

তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবার্ষিকীতে গভীর শ্রদ্ধা জানান।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত বলেন, বাংলাদেশে এই সময়ে তিনটি বিষয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়ন প্রাধান্য দিচ্ছে। আমরা মানবিক সহায়তার পাশাপাশি স্বাস্থ্য খাতে সমস্যা নিরসনে জোর দিচ্ছি। দ্বিতীয়ত স্বাস্থ্য, স্যানিটেশন ও পানি সুবিধা নিশ্চিতে কাজ করছি। আর তৃতীয়ত আমরা মহামারির গবেষণা খাতকে শক্তিশালী করতে জোর দিচ্ছি।

তিনি বলেন, প্রতি বছর ইউরোপীয় ডে আমরা পালন করি। তবে এবার আমরা এই পরিস্থিতিতে সেভাবে দিনটি উদযাপন করতে পারছি না। তিনি বাংলাদেশ-ইউরোপীয় ইউনিয়নের মধ্যে সম্পর্ক শক্তিশালী করার বিষয়ে আশা প্রকাশ করেন।

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *